উচ্ছেদ হচ্ছে রেললাইনের পাশের সব অবৈধ স্থাপনা

171

আলোকিত সকাল ডেস্ক

রাজধানী ঢাকাসহ দেশের সব বড় বড় শহরগুলোর রেল লাইনের পাশে গড়ে উঠা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হবে। বুড়িগঙ্গা ও তুরাগ নদীর অবৈধ দখলমুক্তর করার মত রেলেও জমিও সেইভাবে মু্ক্ত করা হবে। এজন্য সুপারিশ করেছে সংসদীয় কমিটি।

বুধবার (১৭ জুলাই) সংসদ ভবনে অনুষ্ঠি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির পঞ্চম বৈঠকে এসুপারিশ করা হয়। কমিটির সভাপতি মোঃ শামসুল হক টুকুর সভাপতিত্বে বৈঠকে কমিটির সদস্য ও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন, মোঃ আফছারুল আমীন, মোঃ হাবিবর রহমান, সামছুল আলম দুদু, কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা, পীর ফজলুর রহমান এবং সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমদ বৈঠকে অংশ নেন।

বৈঠক শেষে কমিটির সভাপতি সাংবাদিকদের বলেন, ভিন্নস্থানে রেলওয়ের কোটি কোটি টাকার জায়গা দখল করে নিয়েছে ভূমি দস্যুরা। রেলওয়ের কিছু অসৎ কর্মকর্তার যোগসাজশে এটি করা হয়েছে। তাই রেলের ধারে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদের সুপারিশ করেছে কমিটি।

কমিটির সদস্য সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমদ বলেন, নৌ মন্ত্রণালয় যেভাবে নদী দখলমুক্ত করছে সেই ভাবে রেলেও জমিও উদ্ধারের সুপারিশ করা হয়।

বৈঠকে জানানো হয়, মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তর কর্তৃক ‘মাদকাসক্ত সনাক্তকরণ ডোপ টেস্ট প্রবর্তন’ শীর্ষক প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে। উক্ত প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হলে সরকারি চাকরিতে প্রবেশকালে বাধ্যতামূলক ডোপটেস্ট করা হবে। সঠিকভাবে ডোপটেস্ট অব্যাহত রাখার পরামর্শ প্রদান করা হয়।

বৈঠকে বাংলাদেশ আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর কার্যক্রমের উপর প্রতিবেদন উপস্থাপন ও আলোচনা করা হয়। ব্যাটালিয়ন আনসার ফোর্স মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে অন্তর্ভূক্তকরণের সুপারিশ করা হয়।

বৈঠকে জননিরাপত্তা বিভাগের সচিব, সুরক্ষা সেবা বিভাগের সচিবসহ স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এবং জাতীয় সংসদ সচিবালয়ের সংশ্লিষ্ট ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

আস/এসআইসু

Facebook Comments