ক্ষমতা লোভীদের সাথে আপোস করবো না : চরমোনাই পীর

54

 

গত ১৪ই আগষ্ট বুধবার, মাক্কায় একটি হোটেলের হল রুমে, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ সৌদিআরব কেন্দ্রীয় কমিটির দ্বিবার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়,
সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন শায়েখ মুফতী মিজানুর রহমান , পরিচালনা করেন,মাওঃ ওসমান গনী রাসেল।

এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্হিত ছিলেন, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মোহতারাম আমীর মুফতী সৈয়দ মো. রেজাউল করীম, পীর সাহেব চরমোনাই। পীর সাহেব হুজুর বলেন, আব্বাজান রহ. বলতেন “আমি পুলসিরাতের উপর আছি” তখন কথাটি বুঝে আসতোনা, এখন আমীরের দায়িত্বে থাকার কারনে ঐ কথাটি বুঝে আসতেছে, কারন যখন বিভিন্ন দলের নেতা সাক্ষাতে আসেন এবং বিভিন্ন অফার শুনান তখন মনে হয় আসলে পুলসিরাতের উপরেই আছি, ক্ষমতার জন্য যদি আন্দোলন করতাম তা হলে এমপি –মন্ত্রী পাওয়া কোন ব্যাপার ছিলনা। যত অফার আসুক না কেন আল্লাহর ফজলে ঐ ধরনের অফারে আমি বা ইসলামী আন্দোলন পড়বে না, ইনশা আল্লাহ। ইসলামী হুকুমত কায়েমর জন্য আজীবন আন্দোলন চালিয়ে যাবো।

সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ইসলামী আন্দোলনের প্রেসিডিয়ামের অন্যতম সদস্য সৈয়দ মাও. মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল মাদানী, প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মহাসচিব অধ্যাক্ষ ইউনুস আহমাদ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে পীর সাহেব চরমোনাই আরো বলেন, বিশ্বের যেকোন প্রান্তে মুসলমান নির্যাতনের শিকার হবে, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ রাজপথে নেমে আসবে, এবং আন্দোলন চালিয়ে যাবে ইনশা আল্লাহ।

দ্বিবার্ষিক সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসিব মাও. আমিনুল ইসলাম, ইসলামী শ্রমিক আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি জান্নাতু ইসলাম, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় সদস্য সেলিম মাহমুদ, ইসলামী যুব আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সভাপতি যুব নেতা কে এম আতিকুল ইসলাম, ইসলামী যুব আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সেক্রেটারী জেনারেল যুব নেতা মাও. নেছার আহমাদ, সাবেক কেন্দ্রীয় ছাত্র নেতা মাও. শরীফুল ইসলাম,ইসলামী শ্রমীক আন্দোলন ফেনী জেলার সভাপতি হাফেজ রফিকুল ইসলাম।

সম্মেলনে দলীয় আমীরকে পেয়ে আন্দোলনের প্রবাসী নেতা কর্মীরা বেশ আনন্দিত। পরে পীর সাহেব হুজুর বিগত কমিটি বিলুপ্ত করে আগামী দুই বছরের জন্য শায়েখ মুফতী মিজানুর রহমান কে সভাপতি, হাফেজ আসাদ উল্লাহ কে সেক্রেটারী মাওলানা উসমান গনী রাসেলকে সাংগঠনিক সম্পাদক করে পুর্নাঙ্গ কমিটি ঘোষনা ও শপথ পাঠ করান।

এবং দেশ ও জাতির কল্যাণ কামনা করে পীর সাহেব হুজুরের দোয়া মুনাজাতের মাধ্যমে দ্বিবার্ষিক সম্মেলন সমাপ্তি করা হয়।

Facebook Comments