ঝিনাইদহে বন্ধ হয়ে গেছে ১৮ সিনেমা হল

179

আলোকিত সকাল ডেস্ক

দর্শকের অভাবে ঝিনাইদহ জেলায় ১৮টি সিনেমা হল বন্ধ হয়ে গেছে। তাই বিনোদনের জন্য মানুষ ছুটছে পার্ক ও রিসোর্টগুলোতে। এখন আর সিনেমা হলে দর্শক আকর্ষণের জন্য মাইকের প্রচার শোনা যায় না। এদিকে বেকার হয়ে গেছে সিনেমা হলগুলোতে কর্মরত অন্তত দুইশ মানুষ।

জেলা তথ্য অফিস সূত্রে জানা গেছে, হরিণাকুন্ডু উপজেলায় চারটি, মহেশপুরে দুটি, শৈলকুপায় তিনটি, কালীগঞ্জে দুটি, কোটচাঁদপুরে একটি এবং সদর উপজেলায় ছয়টি সিনেমা হল বন্ধ হয়ে গেছে। এমনকি জেলা শহরের সিনেমা হলও চলছে না। জেলার সবচেয়ে পুরানো সিনেমা হল ছবিঘর কয়েক মাস আগে বন্ধ হয়ে গেছে। সেখানে মার্কেট নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছেন মালিকরা।

বর্তমানে ঝিনাইদহ শহরে একটি ও কালীগঞ্জে একটি সিনেমা হল টিকে আছে।

এদিকে জেলায় বেশি পুঁজি বিনিয়োগ করে পার্ক, বিনোদন কেন্দ্র ও রিসোর্ট সেন্টার গড়ে তোলা হচ্ছে। তারা দর্শক আকর্ষণের জন্য বিনোদনের নানা ব্যবস্থা রাখছেন। ঈদ, পার্বণ ও ছুটির দিনে বিনোদন কেন্দ্রগুলোতে উপচেপড়া ভিড় লক্ষ্য করা যায়। ইতোমধ্যে ঝিনাইদহ জেলায় বেসরকারিভাবে পাঁচটি বিনোদন কেন্দ্র গড়ে উঠেছে।

জেলা প্রশাসক সরোজ কুমার নাথ বলেন, সিনেমা হলগুলো সময়ের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলতে পারেনি। এক সময় হলগুলোতে পরিবার নিয়ে বসে ছবি দেখার পরিবেশ ছিল না। আর আধুনিকতা ও আকাশ সংস্কৃতির জন্য সিনেমা হলের ব্যবসা বন্ধ হয়ে গেল। ঐ স্থানটি দখল করছে বিনোদন কেন্দ্র ও পার্ক।

আস/এসআইসু

Facebook Comments