দুলারহাটে অবহেলিত হাসপাতাল! নেই কোন ডাক্তার

267

দুলারহাট প্রতিনিধি

ভোলা জেলার চরফ্যাশন উপজেলা থেকে প্রায় ১২ কিঃমি থেকে ১৩ কিঃমি সর্ব পশ্চিমে দুলারহাট থানার উপস্বাস্থ্য কেন্দ্রটি বর্তমানে ধুঁকছে। নেই ডাক্তার,পর্যাপ্ত পরিমাণে ঔষধ, একজন স্যাকমো দিয়ে চকে দুলারহাট থানার লক্ষাধিক মানুষের চিকিৎসা সেবা এর উপর নির্ভর করেই চলছে হাসপাতাল টি। মুজিবনগরের বিচ্যুত এলাকার হাজার হাজার খেটে খাওয়া মানুষ এবং আবুবকরপুর,আহাম্মদপুর সহ অধ্যলক্ষাদিক মানুষ এই হাসপাতালের উপর নির্ভরশীল। বর্তমানে নেই ডাক্তার, পর্যাপ্ত পরিমাণে ঔষধ, তাই রোগীরাও আর ভরসা পায়না এই চিকিৎসা কেন্দ্রে।

একটু কিছু হলেই জেতে হয় ১২/১৩ কিঃমি পথ পাড়ি দিয়ে চরফ্যাশন হাসপাতাল। দুলারহাট উপস্বাস্হ্য কেন্দ্রে একজন এম বি বি এস ডাক্তারের পদ খালি থাকলেও ডাক্তার না থাকায় প্রতিনিয়ত ভোগান্তির শিকার হচ্ছে শত শত রুগী কোন রুকম চিকিৎসক একজন আছে তাও ডাক্তার না স্যাকমো চিকিৎসক। ফলে এখনকার রোগীদের একটুকিছু হলেই বাধ্য হয়ে যেতে হচ্ছে চরফ্যাশন বড় কিছু হলে ৭০ কিলোমিটার দূরে ভোলা মেডিকেল। এক দুর্বিসহ অবস্থার মধ্যে দিন কাটাচ্ছে এই এলাকার অসংখ্য খেটে খাওয়া মানুষ। কবে আসবে স্থায়ী ডাক্তার? কখন পাবে মানুষ সরকারি হাসপাতালের পরিসেবা? প্রশাসনের নজর কেন পড়ছেনা এই হাসপাতালের উপর? প্রশ্ন অনেক। যত তাড়াতাড়ি সম্ভব ১ জন এম বি বি এএস ডাক্তার এর সেবা চায় এলাকার জনগন।এই ভোগান্তি থেকে মুক্তি চায় দুলারহাট থানার মানুষ।

দুলারহাট উপস্বাস্হ্য কেন্দ্রে এম বি বি এস ডাক্তারের পদ থাকার পরেও কেন এম বি বি এস নেই, এব্যাপারে ভোলা জেলার সিভিল সার্জন এর সাথে আলাপ কালে তিনি ভোলা ক্রাইম নিউজ ডট কম কে জানান চিকিৎসা সেবা প্রতিটি মানুষের ধারঘোড়ায় পৌছে দিতে আগামী ১ (এক) থেকে সর্বউচ্ছ ২ (দুই) মাসের ভিতর দুলারহাট উপস্বাস্হ্য কেন্দ্রে এক জন এম বি বি এস ডাক্তার দেওয়া হবে।

আস/এসআইসু

Facebook Comments