ভারতের হারে হতাশ ওয়াকার-শোয়েবের টুইট

274

আলোকিত সকাল ডেস্ক

এবারের বিশ্বকাপে ইংল্যান্ডকে হারালেই ভারত পেয়ে যেত শেষ চারের টিকেট। স্বাগতিকদের ছুঁড়ে দেওয়া ৩৩৮ রানের জবাবে ভারতের ইনিংস থামে ৩০৬ রানে, ৫ উইকেট হাতে থাকা সত্ত্বেও।

ইনিংসের ৪০তম ওভারের দ্বিতীয় বলে ধোনি ও ৪৫তম ওভারের শেষ বলে কেদার ক্রিজে আসলেও তাদের ব্যাটিংয়ে দৃশ্যমান হয়নি দলকে জেতানোর চেষ্টা। ইনিংস শেষে ধোনি ৩১ বলে ৪৩ ও কেদার ১৩ বলে ১২ রান করে অপরাজিত থাকেন, আর ভারত বরণ করে ৩১ রানের পরাজয়।

ভারতের ইনিংসের শেষদিকে এই ব্যাটিং নিয়ে টুইটারে সমালোচনায় মত্ত হয়েছেন ভারত সমর্থকরা। এমনকি ধোনির পাঁড় ভক্তরাও তার সমালোচনা করছেন।

এই ম্যাচে ভাগ্য জড়িয়ে ছিল পাকিস্তান, বাংলাদেশ এবং শ্রীলঙ্কার। ইংল্যান্ডকে যদি ভারত হারিয়ে দিতে পারে, তাহলে এই তিন দলের সামনেই সেমিতে যাওয়ার সম্ভাবনা তৈরি হতো। কিন্তু উল্টো ভারতকে ৩১ রানে হারিয়ে দিয়ে সেমির লড়াইয়ে দারুণভাবে ফিরে এসেছে ইংল্যান্ড।

সে সঙ্গে সেমির লড়াই থেকে পুরোপুরি ছিটকে দিয়েছে শ্রীলঙ্কাকে। কঠিন করে তুলেছে পাকিস্তান এবং বাংলাদেশের সেমির স্বপ্ন। এখন সেমিফাইনালে যেতে হলে বাংলাদেশকে শেষের দুই ম্যাচে হারাতে হবে ভারত এবং পাকিস্তানকে। এবং ইংল্যান্ডকে হারতে হবে নিউজিল্যান্ডের সাথে।

পাকিস্তানের সেমিতে যেতে হলে ইংল্যান্ডের তো নিউজিল্যান্ডের কাছে হারতে হবেই, সঙ্গে বাংলাদেশকেও হারাতে হবে তাদের। তবেই সেমিতে যেতে পারবে পাকিস্তান।

এমন পরিস্থিতিতে ভারতের উদ্দেশ্যমূলক খেলা নিয়ে প্রশ্ন উঠে গেছে ক্রিকেট বিশ্বে। বিশেষ করে পাকিস্তান তো প্রশ্ন তুলবেই। সাধারণ সমর্থকদের সঙ্গে ভারতের এমন খেলা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়া টুইটারে এসে প্রশ্ন তুলেছেন সাবেক কোচ এবং অধিনায়ক ওয়াকার ইউনুস, সাবেক স্পিডস্টার শোয়েব আখতার।

টুইটারে পোস্ট করা বার্তায় ওয়াকার ইউনুস লিখেন, এটা কোনো ব্যাপার না যে আপনি কে? নিজেকে চেনানোর জন্য আপনি কি করেছেন? এমনকি পাকিস্তান সেমিতে গেল কি গেল না সেটাও আমাকে বিরক্ত করবে না। কিন্তু নিশ্চিত একটি বিষয় আমাকে খুব বিস্মিত করেছে। কিছু চ্যাম্পিয়ন দলের স্পোর্টসম্যানশিপের পরীক্ষা হয়ে গেলো এবং তারা খুব বাজেভাবে এ ক্ষেত্রে ব্যর্থতার পরিচয় দিলো।

পাকিস্তানের স্পিডস্টার শোয়েব আখতার ম্যাচ শেষে টুইটারে পোস্ট করা বক্তব্যে বলেন, ভারতের আরও ভালো খেলার সামর্থ্য ছিলো। প্রথম ১০ ওভারে যে আগ্রাসী মানসিকতা ছিল, তাতে ৫ উইকেট হাতে রেখে হেরে যাওয়া বিস্ময়করই। তারা সত্যিই অবাক করেছে।

আস/এসআইসু

Facebook Comments